1. admin@dailyoporadh.com : admin :
পদ্মা সেতুর পিলারে যে চারটি ফেরি ধাক্কা দিয়েছিল তার একটিরও ‘ফিটনেস’ সনদ নেই - দৈনিক অপরাধ
শনিবার, ২৩ অক্টোবর ২০২১, ১১:০৫ পূর্বাহ্ন
শনিবার, ২৩ অক্টোবর ২০২১, ১১:০৫ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
সাম্প্রদায়িক শক্তি মনে করে, ঠিক একাত্তরের মতো টার্গেট করে সংখ্যালঘুদের ওপর হামলা চালিয়ে তাদের দেশ থেকে বের করে দেওয়া যায় কক্সবাজারের উখিয়ার থাইনখালী রোহিঙ্গা শিবিরে দুটি সন্ত্রাসী গোষ্ঠীর মধ্যে সংঘর্ষ ও গোলাগুলির ঘটনায় সাত জন নিহত ও ১০ জন আহত হয়েছেন দ্বিতীয় ধাপে সারা দেশে ৮৪৮টি ইউনিয়ন পরিষদে (ইউপি) নির্বাচন হতে যাচ্ছে কক্সবাজারে আটক হওয়া ব্যক্তিই কুমিল্লার ইকবাল হোসেন, পুলিশ সুপার (এসপি) উজানের পাহাড়ি ঢল আর দুই দিনের বর্ষণে লালমনিরহাটে তিস্তার পানিতে নিম্নাঞ্চল প্লাবিত হয়েছে দুর্গাপূজার অষ্টমীর দিন কুমিল্লা নগরের নানুয়া দিঘির উত্তর পাড়ের অস্থায়ী পূজামণ্ডপে ইকবাল হোসেন (৩৫) পবিত্র কোরআন রেখেছিলেন বলে পুলিশ জানিয়েছে রাজনৈতিক পৃষ্ঠপোষকতার জন্যই দেশে সাম্প্রদায়িকতার বিস্তার ঘটছে বলে মনে করেন ট্রান্সপারেন্সি ইন্টারন্যাশনাল বাংলাদেশের (টিআইবি) নির্বাহী পরিচালক ইফতেখারুজ্জামান বলিউড তারকা শাহরুখ খানের বাড়িতে তল্লাশি চালাতে ঢুকেছেন ভারতের মাদক নিয়ন্ত্রণ ব্যুরোর (এনসিবি) কর্মকর্তারা দেশের ১২ থেকে ১৭ বছর বয়সী স্কুলশিক্ষার্থীদের টিকা দেওয়া শুরু হয়েছে, ক্রমান্বয়ে দেশের সব মানুষই টিকা পাবে দেশের দ্বিতীয় শীর্ষ মোবাইল অপারেটর রবি আজিয়াটা তাদের সব মোবাইল নেটওয়ার্ক টাওয়ার বিক্রি করে দিচ্ছে

পদ্মা সেতুর পিলারে যে চারটি ফেরি ধাক্কা দিয়েছিল তার একটিরও ‘ফিটনেস’ সনদ নেই

জুয়েল দাস।
  • আপডেট সময় : বৃহস্পতিবার, ১৯ আগস্ট, ২০২১
  • ২৭০ বার পঠিত

পদ্মা সেতুর পিলারে যে চারটি ফেরি ধাক্কা দিয়েছিল তার একটিরও হালনাগাদ ‘ফিটনেস’ সনদ নেই। আইন অনুযায়ী দুটির জীবনকাল পেরিয়ে গেছে। এই ফেরিগুলো নৌপথে চলার কথা নয়। যেহেতু সরকারি সংস্থা ফেরি চালায়, তাই আইনি কোনো ব্যবস্থা নেওয়া হয় না।

ফেরিচালকেরা বলছেন, ফিটনেস সনদ নেওয়া হলে ফেরিতে কী কী সমস্যা আছে, তা ধরা পড়ে। কিন্তু ফেরি চালানোর দায়িত্বপ্রাপ্ত সংস্থা বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌপরিবহন করপোরেশন (বিআইডব্লিউটিসি) সনদ না নিয়েই ফেরি চালাচ্ছে।

শুধু পদ্মা সেতু এলাকার শিমুলিয়া-বাংলাবাজার নৌপথ নয়, পুরো দেশে বিআইডব্লিউটিসি যে ৫৩টি ফেরি চালায়, তার ৪৭টিরই হালনাগাদ ফিটনেস সনদ নেই। জীবনকাল পেরিয়ে গেছে ২০টির। এর মধ্যে পাঁচটির বয়স ৯৫ বছর।
অভ্যন্তরীণ নৌচলাচল অধ্যাদেশ (১৯৭৬) অনুযায়ী দেশের নৌপথে কোনো নৌযান ৪০ বছর পর্যন্ত চলাচল করতে পারে। শুরুতে নিবন্ধনের মেয়াদ হয় ৩০ বছর। এরপর বিশেষ জরিপ করে চলাচল উপযোগী পাওয়া গেলে ৫ বছর করে দুই দফায় ১০ বছর মেয়াদ বাড়ানো যায়।

মেয়াদহীন পুরোনো ফেরি কেন চালানো হচ্ছে জানতে চাইলে বিআইডব্লিউটিসির চেয়ারম্যান সৈয়দ মো. তাজুল ইসলাম, ফেরিগুলো আন্তর্জাতিক সংস্থা ইন্টারন্যাশনাল অ্যাসোসিয়েশন অব ক্ল্যাসিফিকেশন সোসাইটিসের তত্ত্বাবধানে নির্মাণ করা। এগুলো মজবুত এবং ৪০ বছরের পরও আর্থিকভাবে লাভজনক।

অবশ্য সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিরা বলছেন, ফেরি যদি মজবুত থাকে তাহলে তা জরিপ করে এবং ফিটনেস সনদ নিয়েই চালানো উচিত।

এ জাতীয় আরও খবর

ফেসবুকে আমরা

© স্বত্ব সংরক্ষিত © ২০২১ দৈনিক অপরাধ ©
A Sister Concern of Prachi 2020 Ltd