1. admin@dailyoporadh.com : admin :
বড় ধরনের ক্ষতি মানে বহু মানুষের প্রাণহানি - দৈনিক অপরাধ
রবিবার, ২৪ অক্টোবর ২০২১, ০৬:১৯ পূর্বাহ্ন
রবিবার, ২৪ অক্টোবর ২০২১, ০৬:১৯ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
ইকবাল কার প্ররোচনায় পূজামণ্ডপে পবিত্র কোরআন রেখেছিলেন, তা বলেননি বাংলাদেশের সঙ্গে তুরস্কের বাণিজ্যিক সম্পর্ক করোনা মহামারির মধ্যেও খুব একটা ক্ষতিগ্রস্ত হয়নি বলে জানিয়েছেন তুরস্কের রাষ্ট্রদূত ধর্মীয় সম্প্রীতিতে বাংলাদেশকে পৃথিবীর ‘নাম্বার ওয়ান’ বা সেরা উল্লেখ করে পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কে আব্দুল মোমেন করোনা সংক্রমণে ৯ জনের মৃত্যু হয়েছে, এ সময় নতুন রোগী শনাক্ত হয়েছে ২৭৮ জন। চেক জালিয়াতির মাধ্যমে যশোর শিক্ষা বোর্ডের ব্যাংক হিসাব থেকে আরও আড়াই কোটি টাকা আত্মসাত সারা দেশে প্রতিমা, পূজামণ্ডপ, মন্দিরে হামলা, ভাঙচুর, অগ্নিসংযোগের প্রতিবাদে গণ–অনশন, গণ–অবস্থান ও বিক্ষোভ মিছিল করছেন সনাতন ধর্মাবলম্বীরা উচ্চমাধ্যমিক বা এইচএসসি পরীক্ষার ফরম পূরণের জন্য আবার সুযোগ দিয়েছে ঢাকা মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড সাম্প্রদায়িক শক্তি মনে করে, ঠিক একাত্তরের মতো টার্গেট করে সংখ্যালঘুদের ওপর হামলা চালিয়ে তাদের দেশ থেকে বের করে দেওয়া যায় কক্সবাজারের উখিয়ার থাইনখালী রোহিঙ্গা শিবিরে দুটি সন্ত্রাসী গোষ্ঠীর মধ্যে সংঘর্ষ ও গোলাগুলির ঘটনায় সাত জন নিহত ও ১০ জন আহত হয়েছেন দ্বিতীয় ধাপে সারা দেশে ৮৪৮টি ইউনিয়ন পরিষদে (ইউপি) নির্বাচন হতে যাচ্ছে

বড় ধরনের ক্ষতি মানে বহু মানুষের প্রাণহানি

মেহেদী হাসান।
  • আপডেট সময় : বুধবার, ১১ আগস্ট, ২০২১
  • ৩২ বার পঠিত

গত সোমবার মাদারীপুরের বাংলাবাজার ঘাট থেকে মুন্সিগঞ্জের লৌহজংয়ের শিমুলিয়া ঘাটে যাওয়ার সময় বীরশ্রেষ্ঠ জাহাঙ্গীর নামের রো রো ফেরি বহুমুখী পদ্মা সেতুর ১০ নম্বর পিলারে ধাক্কা দেয়। এর আগে গত ২৩ জুলাই নির্মাণাধীন সেতুর ১৭ নম্বর পিলারের সঙ্গে শাহজালাল নামের রো রো ফেরির ধাক্কা লাগে। মাত্র ১৮ দিনের মাথায় পদ্মা সেতুর পিলারে দ্বিতীয়বার ফেরির ধাক্কার ঘটনা খুবই উদ্বেগজনক।

পদ্মা সেতু কর্তৃপক্ষ বলেছে, ফেরির ধাক্কায় পদ্মা সেতুর কোনো ক্ষতি হয়নি। সেতুর নকশা এমনভাবে করা হয়েছে, যাতে চার হাজার টনের নৌযানের ধাক্কা লাগলেও পিলার বা সেতুর কাঠামো ক্ষতিগ্রস্ত হবে না। মূল কাঠামোর ক্ষতি না হলেও পিলারের ক্যাপ ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। পদ্মা নদীতে চলাচলকারী ফেরিগুলোর ওজন এক হাজার টনের মতো। প্রথম দুর্ঘটনার পর বিআইডব্লিউটসি কর্মকর্তারাই স্বীকার করেছেন, সেতুর পিলার ক্ষতিগ্রস্ত না হলেও ফেরি উল্টে গেলে বড় ধরনের ক্ষতি হতে পারত। বড় ধরনের ক্ষতি মানে বহু মানুষের প্রাণহানি।

সোমবারের ঘটনায় পদ্মা সেতুর পিলারে রো রো ফেরি বীরশ্রেষ্ঠ জাহাঙ্গীরের ধাক্কার ঘটনায় বিআইডব্লিউটিসি এক আদেশে ইনল্যান্ড মাস্টার অফিসার দেলোয়ারুল ইসলাম হুইল সুকানি আবুল কালাম আজাদকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে। প্রথম দুর্ঘটনায়ও ফেরির চালককে দায়ী করে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছিল।

বিআইডব্লিউটিসি ভাষ্য অনুযায়ী ফেরির কর্মকর্তারা অদক্ষ। যদি তাঁরা অদক্ষই হবেন, তাহলে কেন তাঁদের দিয়েই ফেরি চালানো হচ্ছে? বিআইডব্লিউটিসি বলেছে, সেতুর নিচে ধরনের দুর্ঘটনা মেনে নেওয়া যায় না। পদ্মা সেতু তো রক্ষা করতেই হবে, সেই সঙ্গে ফেরিতে চলাচলকারী যানবাহন যাত্রীদের নিরাপত্তাও নিশ্চিত করা প্রয়োজন।

সেতু কর্তৃপক্ষ বিআইডব্লিউটিসি নিজেদের মতো কাজ করবে, আর দুর্ঘটনা ঘটলে তদন্ত করে কাউকে দায়ী করবে, এটি চলতে পারে না।

স্বপ্নের পদ্মা সেতু চালু হওয়ার আগেই পরপর এই দুর্ঘটনা দুর্ভাগ্যজনক। বিষয়টি এমন নয় যে পদ্মা সেতু চালু হওয়ার পরই এর নিচ থেকে ফেরি চলাচল একেবারেই বন্ধ হয়ে যাবে। সে ক্ষেত্রে ফেরি সেতু উভয়ের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে যা যা করণীয়, সেগুলো সরকারকে করতে হবে। পাশ্চাত্যে বড় বড় সেতুর নিচে ট্রাফিক লাইট স্থাপন করে নৌযানের গতি নিয়ন্ত্রণ করা হয়। পদ্মা সেতুতেও সে রকম কিছু করা যায় কি না, তা গুরুত্বের সঙ্গে ভাবতে হবে।

অত্যাধুনিক প্রযুক্তির যুগে সবকিছু শারীরিকভাবে করারও প্রয়োজন নেই। যেখানে প্রযুক্তির মাধ্যমে ট্রেনের গতি নিয়ন্ত্রণ করা যায়, সেখানে নৌপথে ফেরি চলাচলের ক্ষেত্রে করা যাবে না কেন? ভবিষ্যতে আমাদের রকম প্রযুক্তি আয়ত্তে আনতে হবে, যাতে ফেরি পিলারের নির্দিষ্ট দূরত্বে স্বয়ংক্রিয়ভাবে থেমে যাবে। ১৮ দিনের ব্যবধানে পদ্মা সেতুর পিলারে দুটি দুর্ঘটনা ঘটল। আমরা আশা করি, তৃতীয় দুর্ঘটনা ঘটার আগেই প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

সব শেষে যে কথাটি বলতে চাই, তা হলো মাঝারি বা নিম্ন পর্যায়ের কর্মকর্তাদের ওপর দুর্ঘটনার দায় চাপিয়ে বিআইডব্লিউটিসি কর্তৃপক্ষের দায়িত্ব এড়ানোর কৌশলও গ্রহণযোগ্য নয়। যাঁরা অধস্তন ব্যক্তিদের দক্ষতা বাড়াতে পারেন না, তাঁদের নিজেদের দক্ষতাও প্রশ্নসাপেক্ষ।

এ জাতীয় আরও খবর

ফেসবুকে আমরা

© স্বত্ব সংরক্ষিত © ২০২১ দৈনিক অপরাধ ©
A Sister Concern of Prachi 2020 Ltd